ভূরুঙ্গামারীতে ২য় আন্তর্জাতিক সর্প দংশন সচেতনতা দিবস পালন

মোঃ মনিরুজ্জামান, কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃ “সর্প দংশনে ‘ওঝা’ নয়, হাসপাতালে চিকিৎসা হয় “এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীতে ২য় আন্তর্জাতিক সর্প দংশন সচেতনতা দিবস পালন করা হয়েছে।

মানুষ কিংবা পশুপাখিকে সাপে কামড়ালে কি করণীয় সেই বিষয়ে সাধারণ মানুষের সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে বৃহস্পতিবার দুপুরে ভূরুঙ্গামারী উপজেলা স্বস্থ্য কমপ্লেক্সের আয়োজনে একটি রেলি বের হয়। রেলি শেষে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সভা কক্ষে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ আবু সাজ্জাদ মোঃ সায়েম সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে দিকনির্দেশনা মূলক বিভিন্ন পরামর্শ প্রদান করেন। সচেতন মহল মনে করেন- সাধারণত গ্রামাঞ্চলে সাপের উপদ্রব বেশি হয় এবং গ্রামের মানুষকেই সাপ বেশি পরিমানে কামড় দিয়ে থাকে। গ্রামের অধিকাংশ মানুষ এখনও বিশ্বাস করেন ‘ওঝা’ সাপের বিষ মুক্ত করতে পারে। এই ধারণা দুর করতে প্রত্যন্ত গ্রামগুলোতে অধিক পরিমানে সচেতনতা কার্যক্রম পরিচালনা করা প্রয়োজন।

আলোচনা সভায় অন্যান্যের মধ্যে পরিসংখ্যানবিদ আইনুল হক, স্বাস্থ্য পরিদর্শক মোহাম্মদ আলী ও  গোলাম সারওয়ার রাঙ্গা সহ সহকারী স্বাস্থ্য পরিদর্শকগন এবং মাঠ পর্যায়ের কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *